শনিবার, জুন ১৫, ২০২৪

১ আষাঢ় ১৪৩১

শনিবার, জুন ১৫, ২০২৪
১ আষাঢ় ১৪৩১
সরকারি রেজিস্ট্রেশন নম্বর- ১৮২
আপনি পড়ছেন : বিনোদন

না ফেরার দেশে পাড়ি জমিয়েছেন জনপ্রিয় ফেসবুক পেজ ‘বদ মেজাজ’ কবির


নিজস্ব প্রতিনিধি -ই সময়
2022-07-18 12:50:45
না ফেরার দেশে পাড়ি জমিয়েছেন জনপ্রিয় ফেসবুক পেজ ‘বদ মেজাজ’ কবির

 

 

 

না ফেরার দেশে পাড়ি জমিয়েছেন জনপ্রিয় ফেসবুক পেজ ‘বদ মেজাজ’—এর প্রধান অ্যাডমিন ও কন্টেন্ট ক্রিয়েটর কবির হোসেন (২৪)। ১৭ জুলাই সন্ধ্যা ৬ টায় রাজধানীর গ্রীন রোডের নিউ লাইফ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়। নিহত কবির হোসেন কুমিল্লার বরুড়া উপজেলার শিলমুড়ি দক্ষিণ ইউনিয়নের খয়রাত পাড়া গ্রামের মৃত কামাল হোসেনের ছেলে।


কবিরের মৃত্যুর বিষয়টি নিশ্চিত করে তার বড় ভাই জাহিদ হোসেন সংবাদ মাধ্যমকে জানান, ‘শুক্রবার (১৫ জুলাই) শিলমুড়িতে মোটরসাইকেল দুর্ঘটনার শিকার হয় কবির। গুরুতর আহত অবস্থায় প্রথমে তাকে কুমিল্লা ট্রমা হাসপাতালে এবং ঢাকার নিউ লাইফ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। সেখানে লাইফ সাপোর্টে থাকা অবস্থায় রোববার সন্ধ্যা তার মৃত্যু হয়।’


জাহিদ হোসেন বলেন, ‘কবিরের লাশ নিয়ে আমরা এখন কুমিল্লার পথে। আজ সোমবার বেলা ৩ টার দিকে আমাদের বাড়িতে তার জানাজা হবে।’  


প্রসঙ্গত, উপস্থাপিকা, নৃত্যশিল্পী এবং ব্র্যান্ড প্রমোটার বারিশ হককে নিয়ে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে অশ্লীলতার মাধ্যমে হেনস্তামূলক পরিস্থিতি সৃষ্টির অভিযোগে গত ১০ মে কুমিল্লা থেকে কবির হোসেনকে গ্রেফতার করেছিল কাউন্টার টেরোরিজম অ্যান্ড ট্রান্সন্যাশনাল ক্রাইম ইউনিটের সিটি-সাইবার ইউনিট।  তার বিরুদ্ধে ঢাকার দক্ষিণখান থানায় পর্নোগ্রাফি নিয়ন্ত্রণ আইনে একটি মামলা হয়েছিল।


পরে ২১ দিন জেলহাজতে থাকার পর গত ১৩ জুলাই জামিন পেয়ে ফেসবুক লাইভে এসে ভুল স্বীকার করে ক্ষমা চান কবির। তিনি বলেছিলেন, ‘দেশের আইন না জেনে আমি একটা ভুল করেছি। আমার নামে একটা মামলাও হয়েছে। আসলে আমি জানতাম না দেশের আইনে এটা অপরাধ।’


তিনি আরও বলেছিলেন, ‘বারিশা আপুর স্বামী আমার সাথে অত্যন্ত আন্তরিকভাবে কথা বলেছেন। পুলিশ কর্মকর্তারাও আমাকে বুঝিয়েছেন যে, আমি যা করেছি দেশের আইনে সেটা অপরাধ।’


বারিশা হকের উদ্দেশে তার বক্তব্য ছিলঃ ‘আমি যে ভুল করেছি, তার শাস্তিও পেয়েছি। আমার পরিবারের দিকে তাকিয়ে আমাকে ক্ষমা করে দিয়েন। মনে কষ্ট রাখবেন না। আমার জন্য বদদোয়া করবেন না। আমি আমার ভুলের জন্য অনুতপ্ত।’ ভিডিওতে কবির দুঃসময়ে তাকে সমর্থন ও দোয়া করার জন্য সমর্থকদের ধন্যবাদ জানিয়েছিলেন। এ সময় তিনি তার মায়ের জন্যও দোয়া চেয়েছিলেন।